জীবননগর উথলী গ্রামে করোনাভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে সাবিনা খাতুন ছবি (৪৫) নামের এক নারীর মৃত্যু হয়।

মোঃ তারিকুর রহমান, চুয়াডাঙ্গা: চুয়াডাঙ্গার জীবননগর উপজেলার উথলীতে জ্বর, শ্বাসকষ্টসহ করোনাভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে সাবিনা খাতুন ছবি (৪৫) নামের এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। বুধবার (২২ এপ্রিল) রাত ১১টার দিকে উথলী বাজার ফুটবল মাঠের পাশ্ববর্তী নিজ বাড়িতে মারা যান তিনি। তিনি স্থানীয় রফিকুল ইসলামের স্ত্রী। এর আগে বুধবার বিকেলে ওই বাড়িসহ আশপাশের কয়েকটি বাড়ি লকডাউন করে জীবননগর থানা পুলিশ।

নিহতের মেয়ে রানু খাতুন জানান, “আমার মা গতকাল থেকেই জ্বর,সর্দি,পাতলা পায়খানা,গলাব্যথাসহ  প্রচণ্ড শ্বসকষ্টে ভুগছিলেন”। 
নিহতের খবর পেয়ে, রাত সাড়ে ১১টা নাগাদ জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে ডা. আব্দুর রাজ্জাকের নেতৃত্বে চার সদস্যের একটি মেডিকেল টিম ওই বাড়িতে এসে মৃত নারীর শরীর থেকে নমুনা সংগ্রহ করেছে। 
এদিকে, জীবননগর উপজেলা প্রশাসনের নির্দেশনায় যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে রাতেই তার দাফনকার্য সম্পন্নের প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে।
বাড়তি সতর্কতার স্বার্থে মৃত নারীর পরিবারের সবার ও প্রতিবেশিদের শরীর থেকে নমুনা সংগ্রহ করা হবে বলে জানিয়েছেন জীবননগর উপজেলা নির্বাহী অফিসার সিরাজুল ইসলাম। রাতেই ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে ওই বাড়িসহ আশপাশের ৫টি বাড়ি লকডাউন করেছেন জীবননগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ সাইফুল ইসলাম।
পাশাপাশি লাশটি দাফনে অংশগ্রহণকারীদের প্রয়োজনীয় দিক নির্দেশনাসহ তাদের হাতে তিনি পিপিই তুলে দেন।

Share your love