বাড়ি বাড়ি প্রতিদিন ৩০০ পরিবারের খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছেন চকরিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান সাঈদী।


সাইফুল ইসলাম,চকরিয়া প্রতিনিধি : কক্সবাজারের চকরিয়ায় করোনার প্রভাবের কারণে সরকারি নির্দেশে ঘরবন্দি হয়ে থাকায় বেশি বেকায়দায় পড়েছেন শ্রমজীবী মানুষগুলো। কাঁচামাল ও মুদির দোকান ছাড়া পৌরশহরের বাণিজ্যিক কেন্দ্র চিরিঙ্গার শতাধিক বিপনী বিতানসহ উপজেলার প্রত্যন্ত এলাকায় দোকান-পাটগুলোও বন্ধ রয়েছে গত তিনদিন ধরে। এই অবস্থায় একেবারে ফাঁকা হয়ে গেছে সড়কগুলো। বন্ধ হয়ে গেছে দিনমজুর, রিক্সাচালক, ইজিবাইক টমটম চালকসহ হতদরিদ্র মানুষগুলোর রুটি-রুজির ব্যবস্থা। এই পরিস্থিতিতে কর্মহীন হয়ে বাড়িতে অবস্থান করার সময় যাতে খাবার নিয়ে কোন সংকটে না পড়েন সেজন্য প্রতিদিন ৩০০ পরিবারের কাছে নিত্যপ্রয়োজনীয় সামগ্রী হিসেবে তিন কেজি চাল, দুই কেজি আটা ও এক কেজি করে মসুর ডাল বিতরণ কার্যক্রম শুরু করেছেন  চকরিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ফজলুল করিম সাঈদী।ব্যক্তিগত পক্ষ থেকে ত্রাণ সহায়তা হিসেবে প্রতিদিন ৩০০ পরিবারকে এই সামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার কাজ শুরু হয়েছে শনিবার থেকে।চেয়ারম্যান সাঈদী বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা মোতাবেক আজ শনিবার থেকে প্রতিদিন ৩০০ পরিবারকে খাদ্যসামগ্রী বাড়ি বাড়ি পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে। গতকাল শুক্রবার প্রায় ৫শ জনকে মাস্ক এবং সাবান বিতরণ করা হয়। করোনা সংকটে যতদিন পর্যন্ত পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে না ততদিন পর্যন্ত প্রতিদিন ৩০০ পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দেওয়া হবে আমার ব্যক্তিগত পক্ষ থেকে।

Share your love