করোনা রোগীর বাড়ি ওষুধসামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছেন জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. জুলিয়েট পারউইন স্নিগ্ধা।

মো: তারিকুর রহমান, চুয়াডাংগা প্রতিনিধি:
চুয়াডাঙ্গার জীবননগর উপজেলায় পূর্বের তুলনায় করোনায় আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা অনেক বৃদ্ধি পেয়েছে। হাসপাতালের পাশাপাশি আক্রান্ত রোগীদের অনেকেই নিজ বাড়িতে থেকে চিকিৎসা নিচ্ছেন। হোম আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন থাকা এ সমস্ত রোগীদের বাড়িতে উপস্থিত হয়ে তাদের স্বাস্থ্যের খোঁজখবর নেওয়ার পাশাপাশি প্রয়োজনীয় ওষুধসামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছেন জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. জুলিয়েট পারউইন স্নিগ্ধা।
 
বুধবার (২১ জুলাই) সকালে আক্রান্ত রোগীদের বাড়িতে ওষুধসামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার পাশাপাশি রোগীর পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের খোঁজখবর নেন তিনি। এর আগেও তিনি আক্রান্ত রোগীদের বাড়িতে কয়েকদফা ওষুধসামগ্রী পৌঁছে দেন।
এ সময় তার সাথে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) মাহমুদ বিন হেদায়েত ।
 
এ সময় ডা.জুলিয়েট পারউইন স্নিগ্ধা বলেন,আমি আশাবাদী পূ্র্বের ন্যায় নতুন করে যারা করোনায় আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছেন তারাও আল্লাহর রহমতে সুস্থ হয়ে উঠবেন। করোনায় আক্রান্ত রোগীদের খোঁজখবর নিতে আমি প্রতিটা বাড়িতে উপস্থিত হয়ে তাদের প্রয়োজনীয় দিকনির্দেশনা দেওয়া ছাড়াও ওষুধসামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছি। যারা আমাকে সহযোগিতা করছেন তাদের সকলের প্রতি আমি আন্তরিক কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।
 
উল্লেখ্য, জীবননগর উপজেলায় এ পর্যন্ত ৪২ জন করোনায় আক্রান্ত রোগী সনাক্ত হয়েছে। এদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ২৬ জন। হোম আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন১৬জন। তবে এই উপজেলায় আক্রান্ত রোগীদের বেশীরভাগই সুস্থ হয়ে উঠছেন। এখনও পর্যন্ত উপজেলাটিতে কেউ মৃত্যুবরণ করেনি।
এছাড়া গতকাল সোমবার নতুন করে সনাক্ত হওয়া তিনজন রোগীর বাড়ি লকডাউন করে দিয়েছে উপজেলা প্রশাসন।
Share On