পরিচয় ছাত্রদল নেতা, পেশায় ছিনতাইকারী!

আতিকুর রহমান লাভলু

সিলেট প্রতিনিধি

ঢাকা: ছাত্রদল নেতা হিসেবেই তার পরিচিতি। দীর্ঘদিন ধরে সিলেট নগরীর উপশহর কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের গ্রুপিং রাজনীতির সাথে জড়িত। একসময় জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক (বর্তমানে নিখোঁজ) ইফতেখার আহমদ দিনারের গ্রুপের কর্মী ছিল সে। বলছি আতিকুর রহমান লাভলুর কথা।

দিনার নিখোঁজ হওয়ার পর উপশহরের আরো কয়েকটি গ্রুপের সাথে যুক্ত হয়ে সক্রিয় ছিল ছাত্রদলের রাজনীতিতে। ছাত্রদল করলেও মূলত তার পেশা ছিল ছিনতাই ও অস্ত্রবাজী। কথাবার্তা আর আচারআচরণে যে ছেলেটিকে একদম সাদাসিধে মনে হবে, সেই ছেলেটির আড়ালে যে রয়েছে বিভৎস অন্য চেহারা তা বিশ্বাস করাই অনেকের পক্ষে কঠিন।

গত রবিবার জৈন্তাপুরে ব্যবসায়ীর ২০ লাখ টাকা ছিনতাইর ঘটনার পর পুলিশের হাতে ধরা পড়েছে লাভলু। তার সাথে আটক হয়েছে আরও দুই সহযোগী। তাদের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে লুণ্ঠিত টাকার মধ্য থেকে এক লাখ টাকা। বাকি টাকা ও ছিনতাইকাজে অন্য তিন সহযোগীকে আটকে পুলিশ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন জৈন্তাপুর থানার ওসি শ্যামল বনিক।

পুলিশ জানিয়েছে, ব্যবসায়ীর টাকা ছিনতাইর ঘটনার মূল নেতৃত্বে ছিল আতিকুর রহমান লাভলু। তার পরিকল্পনায়ই ছিনতাইয়ের এ ঘটনা ঘটে। এর আগে একবার সে অস্ত্রসহ গ্রেফতারও হয়েছিল। সিলেট নগরীর ছিনতাইকারীদের বড় একটি নেটওয়ার্কও নিয়ন্ত্রণ করে থাকে সে।

এদিকে, লাভলু দীর্ঘদিন থেকে ছাত্রদলের রাজনীতির সাথে সংশ্লিষ্ট থাকলেও গত দেড় বছর থেকে সে যুবলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত হওয়ার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছিল। তার এক আত্মীয় যুবলীগ নেতার মাধ্যমে সে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছিল অনুপ্রবেশের। মাঝে মধ্যে তাকে যুবলীগের বিভিন্ন মিছিল ও সভায়ও দেখা গেছে বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন।

দ্য ওয়ার্ল্ডবিডি/ঢাকা/ বিএ

Share On